বিশ্বকাপের ফেবারিট হিসেবে খ্যাত কোহলির নেতৃত্বাধীন ভারতকে হারিয়ে দিয়ে দ্বাদশ আসরের ফাইনালে পা রেখেছে কেন উইলিয়ামসনের নিউজিল্যান্ড। আসরের প্রথম সেমিফাইনালে ভারতকে ১৮ রানে হারিয়ে দিয়ে ফাইনালে পৌঁছালো নিউজিল্যান্ড। একই সঙ্গে হেরে গিয়ে টুর্নামেন্ট থেকে বিদায় নিলো ভারত।

ব্যাটসম্যানদের ভরাডুবিতে নিউজিল্যান্ডের কাছে ১৮ রানে হেরে বিশ্বকাপের স্বপ্ন শেষে হয়ে গেছে কোহলির ভারতের। আর এই হারের দিন কোচের সাথে অধিনায়ক কোহলির আচরন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে।

ম্যানচেস্টারে এদিনে ২৪০ রানের জবাবে মাত্র ৫ রানে ৩ উইকেট হারানোর পর দীনেশ কার্তিক সেট হওয়ার চেষ্টা করেন কিন্তু তিনি প্যাভিলিয়নে ফিরে যান। ৪ উইকেট পরার পর সকলের আশা ছিল যে মহেন্দ্র সিং ধোনি আসবেন কিন্তু তা হয়নি। তার জায়গায় ব্যাট করতে আসেন হার্দিক পান্ডিয়া।

ঋষভ পন্থ তরুণ ব্যাটসম্যান, কিন্তু বিরাট কোহলির দ্বিতীয় উইকেট হিসেবে আউট হওয়ার পর ঋষভ পন্থ ব্যাটিং করার জন্য আসেন। সেই সময় বিরাট মাঠে ছিলেন ফলে পন্থকে পাঠানোর সিদ্ধান্ত কোচ রবি শাস্ত্রীই নিয়ে থাকবেন।

ক্রিজে ভালোই মানিয়ে নিয়েছিলেন ঋষভ পন্থ। কিন্তু বড়ো শট খেলার প্রচেষ্টায় ৩২ রান করেই তিনি প্যাভিলিয়নে ফেরত যান। স্যান্টনারের বলে মিড উইকেটের উপর দিয়ে হঠাৎই ছক্কা হাঁকাতে গিয়ে কলিন গ্র্যান্ডহোমের হাতে ধরা পড়েন ঋষভ। তাকে এভাবে আউট হতে দেখে ড্রেসিংরুমে বসেই রাগে লাফিয়ে ওঠেন অধিনায়ক কোহলি!

এরপর অধিনায়ক কোহলি ড্রেসিং রুম থেকে রাগে ব্যালকনিতে বেরিয়ে আসেন। সেখানে দলের কোচ রবি শাস্ত্রী বসে ছিলেন আর অধিনায়ককে তার উপর মেজাজ দেখাতে দেখা যায়। কোহলি কোচকে কি বলেছেন তা তো জানা যায়নি কিন্তু তাকে যথেষ্ট রাগান্বিত দেখিয়েছে। অন্যদিকে শাস্ত্রী কিছু বলেননি।